জনরোশে নির্বাচনী প্রচারণা থেকে পালালেন ড. খন্দকার মোশাররফ

53

 

।। নিজস্ব প্রতিনিধি।।

কুমিল্লা-১( দাউদকান্দি- মেঘনা) আসনে ঐক্যফ্রন্ট প্রার্থী ও বিএনপি স্থায়ী কমিটির সদস্য ড.খন্দকার মোশাররফ হোসেন জনরোশে নির্বাচনী প্রচারণা বন্ধ করে পালিয়েছেন।

ছবি : বিএনপি নেতা ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন।

বৃহস্পতিবার মেঘনার বিভিন্ন গ্রামে নির্বাচনী প্রচারণা চালাতে যান খন্দকার মোশাররফ হোসেন। এসময় স্থানীয় জনসাধারণ পাকিস্তানী এজেন্টের কুমিল্লায় স্থান নেই বলে শ্লোগান দিতে থাকে। দুর্নীতিবাজদের কুমিল্লায় স্থান নেই বলেও শ্লোগান দেয় সাধারণ মানুষ। দাউদকান্দি মেঘনার মাটি নৌকার ঘাঁটি এমন শ্লোগানও দেয় তারা।

 

ছবি : খন্দকার মোশাররফের নির্বাচনী প্রচারণা দলকে তাড়িয়ে দিচ্ছেন মেঘনার মানুষ।

খন্দকার মোশাররফ হোসেন মেঘনার বড়কান্দা, রামপুর বাজার, সাতানী বাজার, চালিভাংগা বাগ বাজার হয়ে রামপ্রসাদের চর ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতির বাড়িতে মিটিংয়ে যোগ দেয়ার কথা ছিলো। প্রত্যেক স্থান থেকেই তিনি বাঁধাপ্রাপ্ত হন। সাধারণ মানুষের তোপের মুখে প্রতিটি জায়গা থেকে চলে যেতে বাধ্য হন তিনি। রামপ্রসাদের চর গ্রামের ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি সহ, থানা স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি, ইউনিয়ন যুব দলের সভাপতিকে গ্রাম ছাড়া করে স্থানীয়রা।

ছবি : খন্দকার মোশাররফের নির্বাচনী প্রচারণা দলকে তাড়িয়ে দিচ্ছেন মেঘনার মানুষ।

মেঘনার নানা স্থানে এমন বাধার মুখে বিএনপি স্থায়ী কমিটির প্রভাবশালী নেতা ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন নিরাপত্তা কথা চিন্তা করে এলাকা ছেড়ে যান।

উল্লেখ্য, কয়েকদিন আগে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেনের সঙ্গে পাকিস্তানী গোয়েন্দা সংস্থার এজেন্ট মেহমুদের ফোনালাপ ফাঁস হয়। ফোনালাপের অডিও জুড়ে দিয়ে থাইল্যান্ড ভিত্তিক নিউজ পোর্টাল এশিয়ান ট্রিবিউন খবর প্রকাশ করে। এরপর বিবিসিসহ বিশ্বসেরা গণমাধ্যমগুলোতেও প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। এছাড়া দুর্নীতিসহ নানা বিষয়ে কুমিল্লায় বির্তকিত তিনি।

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়, কিন্তু ট্র্যাকব্যাক এবং পিংব্যাক খোলা.